হাটহাজারীতে হেফাজতে ইসলামের বিক্ষোভ মিছিলে উত্তাল

0
22
0 Shares

হাটহাজারী প্রতিনিধিঃ হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের আমীর, শাইখুল হাদীস আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরীকে ভবিষ্যৎকালে কোন অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণে বাঁধা দিলে সমগ্রদেশ শাপলা চত্বরে পরিণত করা হবে, এমনটাই বলেছেন বিক্ষোভ মিছিলের পূর্বমুহূর্তে বক্তারা। হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের আমীর আল্লামা জুনাইদ বাবুন গরীর ঢাকাতে রাহমাতুল্লিল আলামীন কনফারেন্স, মাদারীপুর ওলামা সম্মেলন ও কুমিল্লার দয়াপুর মাদরাসার সম্মেলন সহ পূর্ব নির্ধারিত তিনটি অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণে প্রশাসনের বাঁধায় পন্ড হওয়ার প্রতিবাদে হেফাজতে ইসলাম হাটহাজারী উপজেলা শাখার উদ্যোগে আয়োজিত বিক্ষোভ মিছিল পূর্ব প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

বৃহস্পতিবার (১৯নভেম্ভর) বিকেলে ডাক বাংলো চত্বরে আয়োজিত হেফাজতের ব্যানারে বক্তারা বলেন, সীরাত সম্মেলনে বাঁধা দিয়ে পরিকল্পিত ভাবে ৩টি প্রোগ্রাম বন্ধ করে দিয়ে সরকার যে হেফাজতে ইসলাম বিরোধী তা বোঝিয়ে দিলেন। এভাবে চলতে থাকলে বাংলাদেশে ইসলাম প্রচার কার্যক্রম ও ধর্ম পালন বাঁধাগ্রস্থ হবে। যা একজন সচেতন মুসলমান কখনোই তা মেনে নিতে পারেনা। আমরা সরকারের প্রতি দাবী জানাই আমাদেরকে স্বাধীনভাবে ধর্মীয় অনুষ্ঠান পরিচালনা করতে দিন। অন্যাথায় এর পরিণতি শুভ হবে না বলেও হুমকি দেন সমাবেশ থেকে। শান্তিপ্রিয় তৌহিদী জনতা জেগে উঠলে যে অগ্নিস্ফুলিঙ্গের সৃষ্টি হবে, তা থামাবার শক্তি আপনাদের নেই।

বক্তারা আরও বলেন, সরকারের মধ্যে ঘাপটি মেরে থাকা কিছু নাস্তিক্যবাদীর এজেন্ট সরকারকে ভূল বুঝিয়ে দেশে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি সৃষ্টি করতে এ ষড়যন্ত্র চালাচ্ছে। আমরা সরকারকে বলতে চাই, আল্লামা বাবুনগরী সহ আলেমদের কর্মসূচীতে বাঁধা দিয়ে নিজেকে ইসলাম বিরোধী শক্তির ভূমিকায় পরিচিত করবেন না। দেশের যে প্রান্তে ধর্মীয় প্রোগ্রামে বাঁধা দেবে সেখানেই শাপলা চত্বর করে দেয়া হবে বলেও বক্তারা হুশিয়ারী উচ্চারন করেন। হেফাজতের কেন্দ্রীয় সহ সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা মীর ইদ্রিস নদভীর সভাপতিত্বে ও মাওলানা কামরুল ইসলামের সঞ্চালনায় এতে বক্তব্য রাখেন হেফাজতের যুগ্ন সম্পাদক মাওলানা নাছির উদ্দিন মুনির,

কেন্দ্রীয় প্রচার সম্পাদক মাওলানা জাকারিয়া নোমান ফয়জী, মাওলানা আলী আকবর, মাওলানা এমরান সিক দার, মাওলানা জুনাইদ বিন ইয়াহইয়া, মাওলানা নিজাম সাইয়্যিদ, মাওলানা আসাদ প্রমূখ। পরে হাটহাজারী ডাক বাংলো চত্বরে সমাবেশের পর বিক্ষোভ মিছিলটি হাটহাজারীর প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে হাটহাজারী মাদ্রাসার সামনে এসে শেষ হয়।

মো.সাহাবুদ্দীন সাইফ / দৈনিক সংবাদপত্র 

0 Shares

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here