মুক্তির পর রোজিনা বললেন আমি সাংবাদিকতা চালিয়ে যাব

0
106
ছবি সংগ্রহীত
ছবি সংগ্রহীত
0 Shares

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ সাংবাদিক রোজিনা ইসলাম আজ জামিনে মুক্তি পাওয়ার পর প্রাথমিক প্রতিক্রিয়ায় তিনি  নিজের পেশার প্রতি সংকল্প দৃঢ় কণ্ঠে পুর্নব্যক্ত করেছেন। তিনি বলেন, আমি অবশ্যই সাংবাদিকতা চালিয়ে যাব। সাংবাদিকসহ যারা আমার পাশে ছিলেন, সবাইকে ধন্যবাদ। আজ রবিবার (২৩ই মে) বিকেল চারটার পর সাংবাদিক রোজিনা ইসলাম গাজীপুরের কাশিমপুর হাইসিকিউরিটি কেন্দ্রীয় কারাগার থেকে মুক্তি পান।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের করা দণ্ডবিধি ও অফিশিয়াল সিক্রেটস অ্যাক্টের মামলায় গ্রেপ্তার হয়ে কারাগারে ছিলেন রোজিনা। তাঁকে জামিন আবেদন বিষয়ে আজ আদেশ দেন আদালত। পাঁচ হাজার টাকা মুচলেকা ও পাসপোর্ট জমা দেওয়ার শর্তে তিনি জামিন পান। এর আগে পাঁচ হাজার টাকার বন্ড ও পাসপোর্ট জমা দেওয়ার শর্তে তাকে জামিন দেন আদালত। ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম বাকী বিল্লাহ তার জামিন মঞ্জুরের আদেশ দেন।

জামিনের পর রোজিনা ইসলামের আইনজীবী এহসানুল হক সমাজী বলেন, আমরা একে অপরের পরিপূরক। প্রত্যেকে যার যার জায়গা থেকে দায়িত্বশীল আচরণ করবে। সেটি যাতে ক্ষুণ্ন না হয় সেদিকে আমাদের খেয়াল রাখতে হবে। সাংবাদিক ভাই প্রত্যেকে দায়িত্বশীল আচরণ করবে। আজ ভিডিওটি নিয়ে আলোচনা হয়নি। আমা দের কাছে মুখ্য ছিল জামিনের বিষয়টি। ভিডিও ডক্যুমেন্টসটি পরে উত্তোলন করে আইনানুগ প্রক্রিয়ায় কাজ শুরু হবে। কেন পাসপোর্ট জমা দেওয়ার শর্তে জামিন দেওয়া হলো সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী আব্দুল্লাহ আবু বলেছেন,

আদালত আমাদের উভয় পক্ষের বক্তব্য শুনেই জামিন মঞ্জুর করেছে। তারাও মেনে নিয়েছে পাসপোর্ট জমা দিবে। এ নিয়ে আর কথা বলার কিছু নেই। মুচলেকা ভিডিও দাখিলের জন্য রাষ্ট্রপক্ষের আবেদনের প্ররিপ্রেক্ষিতে আদালত এ আদেশ মঞ্জুর করেন। গত বৃহস্পতিবার শুনানির ধার্যকৃত দিনে ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজি স্ট্রেট আদালতে ভার্চ্যুয়ালি এ শুনানি হয়। একই সঙ্গে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী শুনানি এক সপ্তাহ পেছানোর আবেদন করেন।

সচিবালয়ে অনুমতি ছাড়া করোনা ভ্যাকসিনের সরকারি নথির ছবি তোলার অভিযোগে রোজিনা ইসলামকে পাঁচ ঘণ্টা আটকে রাখার পর শাহবাগ থানা পুলিশে সোপর্দ করে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। সোমবার (১৭ই মে) রাত সাড়ে ৮টার পরে শাহবাগ থানা পুলিশের একটি টিম সচিবালয় থেকে রোজিনা ইসলামকে নিয়ে যায়। রোজিনা ইসলামের বিরুদ্ধে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের উপসচিব সিব্বির আহমেদ ওসমানী লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

জালাল / দৈনিক সংবাদপত্র 

0 Shares

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here