ফিল্ম ক্লাবে লাখ লাখ টাকার জুয়া খেলা হয়!

0
53
0 Shares

ফিল্ম ক্লাবে একটি রুম রয়েছে। সেখানে লাখ লাখ টাকার জুয়া খেলা হয়। অথচ তাদের অধিকাংশ ফিল্ম ক্লাবের সদস্য নয়। নাস্তা ৯টায় বন্ধ করে দেওয়া হলেও তাদের ভিআইপিভাবে নাস্তা দেওয়া হয় ক্লাবের খরচে। রুম বন্ধ করে অবৈধ কাজের প্রতিবাদ করায় আমার সদস্যপদ স্থগিত করেছে। এভাবেই ইকবাল  অভিযোগের উল্টো তীর ছুড়েছেন ফিল্ম ক্লাবের প্রেসিন্ডেট ওমর সানির দিকে।

গত (২১ মার্চ) রোববার রাত ১০টায় ফিল্ম ক্লাবে নাস্তা নিয়ে ওমর সানি-ইকবালের মাঝে অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটে। এ সময় ক্লাব প্রেসিডেন্ট ওমর সানিকে জঘন্য ভাষায় গালাগাল, প্রাণনাশের হুমকি দেন ইকবাল। ক্লবের নিয়ম অনুযায়ী ৬ মাসের জন্য ইকবালের সদস্য পদ স্থগিত করা ও ফিল্ম ক্লাবে তার প্রবেশ স্থগিত করা হয় । এরপর ইকবালের নামে থানায় সাধারণ ডায়েরিও করেন ওমর সানি।

তবে ইকবালের দাবি, তিনি কাউকে হুমকি দেননি।  ইকবাল বলেন, ২২ দিনে আপ্যায়ন খরচ ২ লাখ ২১ হাজার টাকা। চা-বিস্কুট বাবদ এই খরচ হয়েছে! কোনো অতিথি গেলে এত টাকা খরচ হয়? এ বিষয় নিয়ে ক্লাবে গালাগাল করেছি। আমি কোনো ব্যক্তিকে গালাগাল করিনি। কিন্তু উনি (ওমর সানি) গায়ে নিয়েছেন। আমি নিজেই বলেছি- আমাকে বহিষ্কার করুন। এই অনিয়মের মধ্যে আমি থাকতে চাই না। আমি কাউকে হুমকি দেইনি।

গুলশান থানায় সাধারণ ডায়েরি (১৪০৬) করেছেন ওমর সানি। তিনি জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে জিডি করেছেন। এদিকে ইকবাল ফেইসবুক পেজে এক ভিডিও বার্তায় বলেছেন, তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র হচ্ছে। ওমর সানি তার জিডিতে যা উল্লেখ করেছেন তা মিথ্যা ভিত্তিহীন।

ইকবাল ‘শুটার’, ‘পাসওয়ার্ড’, ‘বীর’সহ বেশ কয়েকটি সিনেমা প্রযোজনা করেছেন। ফিল্ম ক্লাবের আজীবন সদস্য তিনি। তিনি এই সংগঠনের সাবেক সাধারণ সম্পাদক।

0 Shares

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here