ঠাকুরগাঁওয়ে হাস্কিং মিলে বয়লার বিস্ফোরণে ১ শ্রমিক নিহত আহত হত ৮ জন্য ।

0
318

ঠাকুরগাঁও  প্রতিনিধি
ঠাকুরগাঁও জেলার সদরে রুহিয়া থানা এলাকায় রাজাগাঁ ইউনিয়ন  একটি হাস্কিং মিলে বয়লার বিস্ফারণে এক শ্রমিক নিহত হয়েছেন; মিল মালিক ও তার ছেলে সহ আরও ৮ জন আহত হয়েছেন।
রুহিয়া থানার ওসি চিত্ত রঞ্জন রায় বলেন, ১৬ ফেব্রুয়ারি রোববার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে রাজাগাঁও ইউনিয়নের জামাদারপাড়া গ্রামে ভাইয়া হাস্কিং মিলে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত সোলেমান আলী (৫০) জামাদারপাড়ার প্রয়াত আব্বাস আলীর ছেলে।


আহতরা হলেন মিল মালিক রুহুল আমিন (৬৫), তার ছেলে জহিরুল ইসলাম (৪৫), তিন শ্রমিক সহুল আলম সনু (৬০), মনতাজ রহমান (৫৫) ও বাদল (২৮), স্থানীয় বাদিয়া মার্কেটের দোকানদার তুলশি (২৮), পথচারী আরিফ হোসেন (১৫) ও আলম (৪৫)। তাদের ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। হাসপাতালের চিকিৎসক শিহাব মাহমুদ শাহরিয়ার সুজন বলেন, আহত ৮ জনকে হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। তারা আশঙ্কামুক্ত। সুস্থ হতে একটু সময় লাগবে। প্রত্যক্ষদর্শীর বরাতে ওসি চিত্তরঞ্জন রায় সাংবাদিককে বলেন, সকালে ভাইয়া হাস্কিং মিলে ধান সিদ্ধ করার কাজ করছিল শ্রমিকরা। এ সময় শ্রমিক সোলেমান আলী বয়লারের চুলায় তুষ দিচ্ছিলেন। হাঠাৎ করে বয়লারটি বিস্ফোরিত হয়ে প্রায় দুইশ গজ দূরে বাদিয়া মার্কেট বাজারের পাশে গিয়ে পড়ে।“বিস্ফোরণে বয়লারের গরম পানিতে ঝলসে গিয়ে ঘটনাস্থলে সোলেমান আলী নিহত হয়। এছাড়াও মিলের মালিক, শ্রমিক, পথচারীসহ ৮ জন আহত হন।”
বিকাল ৪টার দিকে ঠাকুরগাঁও জেলা প্রশাসক কে এম কামরুজ্জামান সেলিম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।
তিনি বলেন, নিহত ব্যক্তির লাশ দাফনের জন্য তার পরিবারকে ঠাকুরগাঁও জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে নগদ ২০ হাজার টাকা এবং তাক্ষৎণিক সহায়তা হিসেবে শুকনা খাবার দেওয়া হয়েছে। আহত প্রত্যেক ব্যক্তির পরিবারকেও শুকনা খাবার দেওয়া হয়েছে।
নিহতের পরিবারের সদস্যদের চাকরির ব্যবস্থা করে দেওয়া হবে বলেও আশ্বাস দেন ঠাকুরগাঁও জেলা প্রশাসক।। এ সময় ঠাকুরগাঁও জেলার সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল্লাহ আল মামুন, ঠাকুরগাঁও জেলার সদর উপজেলা চেয়ারম্যান অরুনাংশু দত্ত টিটো, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সার্কেল) আবু তাহের মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ,।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here