জামালপুরে একসাথে ৪ শিশুর জন্ম দিল এক গৃহবধু

0
109
জামালপুরে একসাথে ৪ শিশুর জন্ম দিল এক গৃহবধু
জামালপুরে একসাথে ৪ শিশুর জন্ম দিল এক গৃহবধু
0 Shares

ব্যুরো প্রধান জামালপুরঃ জামালপুরে একসাথে ৪ শিশুর জন্ম দিয়েছে আনোয়ারা বেগম (৩০) নামের এক গৃহবধু। মঙ্গলবার ১৮ই আগস্ট সকালে জমালপুর শহরের জিয়া হেলথ কমপ্লেক্স নামের বেসরকারি একটি হাসপাতালে ওই নারীর ২ টি ছেলে ও ২টি কন্যা শিশু জন্ম নিয়েছে। পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, মাদারগঞ্জ উপজেলার গুনারীতলা ইউনিয়নের শিং দহ গ্রামের অটো চালক বেলাল মিয়ার স্ত্রী আনোয়ারা বেগম।

জামালপুরে একসাথে ৪ শিশুর জন্ম দিল এক গৃহবধু
জামালপুরে একসাথে ৪ শিশুর জন্ম দিল এক গৃহবধু



ওই নারী গর্ভবতী হওয়ায় তার পরিক্ষার রিপোর্টে জমজ সন্তান হবে বলে জানিয়েছিল মাদারগঞ্জের একটি ডায়াগনস্টিক সেন্টার। সে ভাবেও প্রস্তুতি ও নিয়ে আসছিল। হঠাৎ সোমবার রাত থেকে প্রসব ব্যাথা শুরু হলে মঙ্গলবার সকালে তাকে জামালপুর শহরের জিয়া হেলথ কমপ্লেক্স হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। হাসপাতালে যাওয়ার কিছুক্ষণ পরেই সকালের দিকে স্বাভাবিক নিয়মে একটি কন্যা সন্তানের জন্ম দেন তিনি।


এদিকে প্রায় ১ ঘন্টা অপেক্ষা করার পর আর কোন সন্তান না হলে, বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের পরামর্শে অস্ত্রপাচারের মাধ্যমে দ্বিতীয় বারে আরো তিনটি সন্তানের জন্ম হয়। এর আগেও আনোয়ারা বেগমের আরো ২টি কন্যা সন্তান রয়েছে। একটির বয়স ১১ ও অন্যটি ৬ বছর বয়সী। গাইনি সার্জন ডা. সাজদা-ই-জান্নাত তনু বলেন, আনোয়ার বেগম আমাদের তত্বাবধানের রোগী ছিল না।


দীর্ঘ প্রসব বেদনা নিয়ে সে সকাল ৬টায় হাসপাতালে ভর্তি হয়। তার গর্ভের বাচ্চার পজিশন ঠিক ছিল না। আমরা প্রাথমিক ভাবে নরমাল ডেলিভারীর চেষ্টা করি এবং ১টি কন্যা সন্তানের জন্ম হয়। তার বিভিন্ন পরীক্ষার রিপোর্ট দেখে বুঝলাম তার জমজ সন্তান হবে। তখন আমরা নরমাল ডেলীভারীর জন্য আরো ১ ঘন্টা অপেক্ষা করলাম কিন্তু তার পেটে হাত দিয়ে মনে হচ্ছিল তার গর্ভে জমজ সন্তানের চেয়ে বেশি কিছু আছে।


তার আত্মীয় স্বজনদের সাথে কথা বলে দ্রুত সার্জারি করা হয়। পরবর্তীতে আরো ২ টি ছেলে ও ১ টি কন্যা সন্তান জন্ম দেন তিনি। আনোয়ারা বেগম সহ তার ৪টি সন্তানই সুস্থ আছে। নবজাতকদের ওজন স্বাভাবিকের চেয়ে কিছুটা কম থাকায় তাদের স্পেশাল কেয়ারের জন্য জামালপুর সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়।


এদিকে একটি কন্যা ও একটি ছেলে সন্তানকে হাসপাতালের শিশু ওয়ার্ডের ইনকিউবেটরের ভিতরে রাখা হয়েছে। আর দুটি নবজাতকে নানী যত্ন নিচ্ছে হাসপাতালের বিছানায়। পরিবারের পক্ষ থেকে নানা নানী খালা সবাই খুশি হয়েছে এক সাথে চার সন্তান পৃথিবীতে আসায়।


মা আনোয়ারা জানান, জানান মহান সৃষ্টিকর্তার কাছে আমি সন্তুুষ্ট। আমার এক সাথে চার সন্তান দান করায। আমি সুস্থ আছি দেশবাসীর কাছে সন্তানদের জন্য দোয়া চাই। তবে এখন শিশুদের দেখিনি দেখার জন্য মন আকুল হয়ে আছে।



নিজস্ব প্রতিবেদক / দৈনিক সংবাদপত্র 

0 Shares

পোস্ট টি সম্পর্কে আপনার মতামত জানানঃ