জগন্নাথপুরে শিরিন কমিউনিটি সেন্টার নিয়ে মামলার রায় পান বাদী

0
21
0 Shares

জগন্নাথপুর প্রতিনিধিঃ সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর উপজেলার মিরপুর বাজারের পাশে অবস্থিত আলোচিত শিরিন কমিউনিটি সেন্টার নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে আদালতে মামলা-মোকদ্দমা হয়। সুনামগঞ্জ সিনিয়র সহকারি জজ আদালতে ১৪১/১৭ নং স্বত্ব মোকদ্দমার বাদী হলেন শিরিনা বেগম ও বিবাদী তৈয়বুর রহমান প্রকাশিত নুর উদ্দিন গং। ২০০৫ সালে আরএস ৫২৮ দাগে ১০ শতক ও ৩১৭ দাগের ৩০ শতকের মধ্যে ২৩ শতকের উপর শিরিন কমিউনিটি সেন্টারটি প্রতিষ্ঠিত হয়।

মামলায় বিবাদীপক্ষ সাক্ষ্য প্রমাণ উপস্থাপন করতে না পারায় বাদীপক্ষ রায় পান। এছাড়া বিবাদীদের দায়ের করা রিসিভার দরখাস্তটিও নামঞ্জুর করা হয়। এ বিষয়ে রায় পাওয়া মামলার বাদী শিরিনা বেগম বলেন, ২০০৫ সালে আমার প্রয়াত স্বামী যুক্তরাজ্য প্রবাসী সাজ্জাদুর রহমান সফিক শিরিন কমিউনিটি সেন্টারটি প্রতিষ্ঠিত করেন। তিনি মারা যাওয়ার পর থেকে আমি উক্ত সেন্টারের দ্বিতীয় তলায় বসবাস করছি ও ভোগ দখলে আছি।
তবে প্রবাসে থাকা আমার স্বামীর ভাইবোন কিছু জায়গার মালিকানা দাবি করে

আফিজ উদ্দিনকে আমমোক্তার নিযুক্ত করেন এবং আদালতে মামলা-মোকদ্দমা হয়। অবশেষে আদালত আমার পক্ষে রায় দিয়েছেন। এতে শিরিন কমিউনিটি সেন্টারটি পরিচালনায় আর কোন বাধা রইল না। এখন থেকে যে কোন বিয়ের অনুষ্ঠান বুকিংয়ের জন্য সরাসরি যোগাযোগ করুন মোবাইল নং-০১৭১৮-২৪০২৭৮ নাম্বারে।

নিজস্ব প্রতিবেদক / দৈনিক সংবাদপত্র 

0 Shares

পোস্ট টি সম্পর্কে আপনার মতামত জানানঃ