কয়রায় ৩০ বনজীবী মুন্ডা নারীর স্থায়ী কর্মসংস্থান করলো আইসিডি

0
28
কয়রায় ৩০ বনজীবী মুন্ডা নারীর স্থায়ী কর্মসংস্থান করলো আইসিডি
কয়রায় ৩০ বনজীবী মুন্ডা নারীর স্থায়ী কর্মসংস্থান করলো আইসিডি
0 Shares

খুলনা প্রতিনিধিঃ খুলনার কয়রা উপকূলীয় অঞ্চলের মুন্ডা সম্প্রদায়, বনজীবী ও বাঘ বিধবা পরিবারের সার্বিক উন্নয়ন, কর্মসংস্থান সৃষ্টি ও শিক্ষা বিস্তারে সবসময়ই অবদান রেখে চলছে উপকূলের স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন আই সিডি। সাম্প্রতিক ঘূর্ণিঝড় আম্পানের আঘাতে লন্ডভন্ড উপকূলীয় মুন্ডা সম্প্রদায়ে মানুষ ও বনজীবীদের দূর্ভোগে র সীমা ছিলনা। আদিবাসী মুন্ডা নারীদের মধ্যে অনেকেই এখন জীবিকার জন্য সুন্দরবনের উপর নির্ভরশীল।

নদীতে নেমে মাছ, কাকড়া ধরে জীবিকা নির্বাহ করে। কিন্তু অধিকাংশের নিজস্ব নৌকা নাই।কেউ কেউ ভাড়া করা নৌকায় মাছ ধরে জীবন জীবিকা নির্বাহ করে। একদিকে নদী ভাঙন আর অন্যদিকে বেড়িবাঁধ ভেঙে যাওয়ায় উপকূলীয় এ অঞ্চলে দূর্ভোগে পড়া মানুষের আকাশে নেমে আসে কালো মেঘ। ঘূর্ণিঝড়ের বাতাসের তীব্র গতি আর পানির স্রোতে হারিয়ে যায় তাদের আশ্রয়।

এ সকল অসহায় বনজীবী মুন্ডা নারীদের স্থায়ী কর্মসংস্থানে সৃষ্টির লক্ষে আইসিডি’র উদ্যোগে এলজি অর্থায়নে বনজীবী ৩০ জন মুন্ডা নারীদের নৌকা বিতরন করা হয়। শনিবার ১৯ই সেপ্টেম্বর দুপুরে ৫ নং কয়রা লঞ্চঘাটে কয়রা সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এইচ এম হুমায়ুন কবিরে সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থি ত থেকে নৌকা বিতরন করেন এলজি বাংলাদেশের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ডিকে সন।

এসময় বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন কয়রা উপজেলা নির্বাহী অনিমেষ বিশ্বাস।অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত উপজেলা প্রাণী সম্পদ অফিসার মোস্তাইন বিল্লাহ, কাশিয়াবাদ ফরেস্ট স্টেশন অফিসার আব্দুল্লাহ আল বারহাম, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এস এম বাহারুল ইসলাম, আইসিডি এর প্রতিষ্ঠাতা আশিকুজ্জামান আশিক,

সিনিয়র সাংবাদিক হারুন অর রশীদ, রিয়াছদ হোসেন, অরবিন্দ কুমার মণ্ডল, আনিসুজ্জামান, শাহজান সিরাজ, কামাল হোসেন এবং আইসিডি সদস্যসহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।

শাহরিয়ার কবির / দৈনিক সংবাদপত্র 

0 Shares

পোস্ট টি সম্পর্কে আপনার মতামত জানানঃ