করোনায় গোবিন্দগঞ্জকে ছাড়িয়ে জেলার শীর্ষ গাইবান্ধা সদর

0
88
করোনায় গোবিন্দগঞ্জকে ছাড়িয়ে জেলার শীর্ষ গাইবান্ধা সদর
করোনায় গোবিন্দগঞ্জকে ছাড়িয়ে জেলার শীর্ষ গাইবান্ধা সদর
0 Shares

গাইবান্ধা প্রতিনিধিঃ প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে প্রতিনিয়ত হু হু করে আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে গাইবান্ধায়। ইতোমধ্যে জেলায় আক্রান্তের সংখ্যায় করোনায় বিপর্যস্ত গোবিন্দগঞ্জ উপজেলাকে ছাড়িয়ে শীর্ষে অবস্থান করছে গাইবান্ধা সদর উপজেলা। এরমধ্যে গাইবান্ধা পৌরসভায় রয়েছে সর্বোচ্চ সংখ্যক আক্রান্ত।


এই রিপোর্ট লেখার সময় শুক্রবার ২৮ই আগস্ট জেলা সিভিল সার্জন কার্যালয়ের দেয়া সর্বশেষ পরিসংখ্যানে জানানো হয়, জেলার শীর্ষ অবস্থানে থাকা গাইবান্ধা সদরে মোট আক্রান্ত ২৮৪ জন। এরমধ্যে পৌর এলাকাতেই আক্রান্ত হয়েছেন ২১৪ জন আর উপজেলার ১৩ ইউনিয়নে মোট আক্রান্ত ৭০ জন। গাইবান্ধা সদরের ১৩ ইউনিয়নে করোনায় কোন মৃত্যু নেই।


তবে পৌর এলাকায় মারা গেছে ৩ জন। এ পর্যন্ত জেলায় আক্রান্ত ৯১৭ জনের মধ্যে গোবিন্দগঞ্জ, পলাশবাড়ী, সুন্দরগঞ্জ এবং গাইবান্ধা এই চার পৌর এলাকায় সংক্রমণের সংখ্যা ৪৫২ জন। এরমধ্যে গাইবান্ধা পৌরসভায় সর্বোচ্চ সংখ্যক আক্রান্ত ২১৪ জন। এর পরে যথাক্রমে গোবিন্দগঞ্জ পৌরসভা ১৫৪ জন, পলাশবাড়ী পৌরসভা ৫৪ জন এবং সুন্দরগঞ্জ পৌরসভা ৩০ জন কোভিড-১৯ রোগী রয়েছে।


অন্যদিকে শীর্ষ দুইয়ে অবস্থান করা গোবিন্দগঞ্জে করোনা আক্রান্ত ২৮৩ জন। এছাড়া আক্রান্তের সংখ্যাধিক্য অনুযায়ী এর পরের অবস্থান যথাক্রমে পালাশবাড়ি ৮৭ জন, সাদুল্লাপুর ৮২ জন, সাঘাটা ৬৬ জন, সুন্দরগঞ্জ ৬৩ জন ও ফুলছড়ি উপজেলায় ৫২ জন। বৃহস্পতিবার রাতে জেলা সিভিল সার্জন কার্যালয়ের পরিসংখ্যানে বলা হয়, গত ২৪ ঘন্টায় শুক্রবার ২৮ই আগস্ট পর্যন্ত জেলার ৭ উপজেলায় ৯১৭ জনের শরীরে


ধরা পড়েছে করোনা। মারা গেছেন ১৪ জন। এর মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ৬৭২ জন। বিভিন্ন আইসোলেশনে চিকিৎসা ধীন আছেন ২৩১ জন। গত ২৪ ঘন্টায় জেলায় নতুন করে আরও ৪ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। নতুন করে আক্রান্তদের মধ্যে সদরে ২ জন, সাঘাটায় ১ জন এবং গোবিন্দগঞ্জ উপজেলায় ১ জন রয়েছেন। তবে করোনার সংক্রমণের মধ্যেই আশার আলো এর সুস্থতার সংখ্যা।


জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ বলছে, জেলায় গত ২৪ ঘন্টায় নতুন করে আরও ১৪ জন সুস্থ হয়ে আইসোলেশন থেকে ছাড়পত্র পেয়েছেন। এ পর্যন্ত জেলায় ৬৭২ জন মানুষ সুস্থ হয়ে উঠেছেন ওই রোগ থেকে। গাইবান্ধায় বর্তমানে আইসোলেশনে চিকিৎসাধীন ২৩১ জনের মধ্যে ১০৫ জন গাইবান্ধা সদরে, গোবিন্দগঞ্জে ৪৬ জন, সাদুল্লাপুরে ২৫ জন, ফুলছড়ি ১৭ জন, সাঘাটায় ১৬ জন, পলাশবাড়ীতে ১৫ জন


এবং সুন্দরগঞ্জ উপজেলায় ৭ জন রয়েছেন। জানা গেছে, এখন পর্যন্ত জেলায় মোট ১৪ জন করোনা আক্রান্ত রোগী মারা গেছেন। এর মধ্যে গোবিন্দগঞ্জে ৪ জন, সদরে ৩ জন, সাদুল্লাপুরে ২ জন, পলাশবাড়ীতে ৪ জন এবং সুন্দরগঞ্জ উপজেলায় আরও ১ জনের মৃত্যু হয়েছে। তবে করোনা সংক্রমণ নিয়ে স্থানীয়রা অনেকটাই অসচেতন।


চলাচলে অসতর্কতা এবং সামাজিক দূরত্ব ও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার স্বাস্থ্যবিধি কেউ সঠিকভাবে মেনে চলছেন না। সাধারণ মানুষ হাঁটবাজার, দোকানপাট ও রাস্তাঘাটে অবাধে চলাচল করছেন। চলছে চায়ের দোকানে আড্ডা। স্বাস্থ্যবিধি প্রতিপালনে কমেছে প্রশাসনের নজরদারিও। এতে করোনার ভয়াবহ সংক্রমণের আশঙ্কা করছেন স্বাস্থ্যসেবা সংশ্লিষ্টরা।


সফিকুল ইসলাম রাজা / দৈনিক সংবাদপত্র 

0 Shares

পোস্ট টি সম্পর্কে আপনার মতামত জানানঃ